বৃহস্পতিবার, ২০ জুন ২০২৪, ১২:২৩ অপরাহ্ন

দীর্ঘ আন্দোলন সংগ্রামে বিএনপি’র অজর্ন ৩টি – এস এম জিলানী

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • প্রকাশের সময় : বুধবার, ৫ জুন, ২০২৪
  • ৭৮ 🪪

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের নির্দেশনায় বিগত দিনে আন্দোলন সংগ্রামে কারাবরনকারী ও হামলা- মামলার স্বীকার নারায়ণগঞ্জ মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের নেতাকর্মীদেরকে সংবর্ধনা দেওয়া হয়েছে। 

বুধবার (৫ই জুন) বেলা সাড়ে ১২টায় নগরীর মিশনপাড়া সংলগ্ন বাংলাদেশ হোসিয়ারি সমিতি কমিউনিটি সেন্টারে মহানগর  স্বেচ্ছাসেবক দলের উদ্যোগে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

এসময় নারায়ণগঞ্জ মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের অন্তর্ভুক্ত বিভিন্ন থানা, উপজেলা ও ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক দলের কারা-নির্যাতিত নেতাকর্মীদের ফুলেল শুভেচ্ছায় সংবর্ধনা জানিয়ে বরণ করে সংগঠনের কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দ।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বেচ্ছাসেবক দলের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সভাপতি এস এম জিলানী বলেন, সারাদেশে বিএনপি ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীরা তাদের আহ্বান এদেশের জনগণের কাছে পৌঁছে দিয়েছেন। দেশের মানুষ তাদের ডাকে সাড়া দিয়ে সেই নির্বাচন বর্জন করেছেন।  সেই সময়ে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান আগামিদিনের দেশনায়ক তারেক রহমান বলেছিলেন আমাদের এই আন্দোলন ও লড়াই ক্ষমতায় আসার জন্য নাই। আমাদের আন্দোলন এদেশের মানুষের ভোটের অধিকার ফিরিয়ে আনার জন্য। এই জুলুম বাজ সরকারের বিরুদ্ধে আমাদের আন্দোলন। সেই আন্দোলন সংগ্রাম করতে গিয়ে আমাদের স্বেচ্ছাসেবক দলের বহু নেতাকর্মীকে গ্রেফতার, হামলা মামলা ও নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছে। শুধু তাই নয় তাদের পরিবারকেও অনেক হয়রানি ও নির্যাতনের শিকার হতে হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ১৭বছর ধরে রাজপথে আছি। হামলা মামলা ও গ্রেফতার নির্যাতনের ভয় দেখিয়ে লাভ নেই।  আর তৃনমুল বিএনপি করে বিএনপিকে ভাঙ্গার পাঁয়তারা করেছিলেন। নারায়ণগঞ্জের এক কুখ্যাত নেতা সেই তৃনমুল বিএনপিতে যোগদান করেছিলেন। কিন্তু তারা কিছুই করতে পারেনি।

দীর্ঘ ১৭টি বছর একটি ভয়াবহ ফ্যাসিবাদী সরকারের কবলে পড়েছে। ১৪ সালে অবৈধভাবে আর ১৮সালে দিনের ভোট রাতে এবং ২৪ সালে শেখ হাসিনা ডামি নির্বাচনের মাধ্যমে  ক্ষমতায় এসেছে। আর আমরা জাতীয়তাবাদী দল সেই নির্বাচন বর্জন করেছি। আর দেশের জনগণকে দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান সেই নির্বাচন প্রত্যাখ্যান করতে বলেন। আন্দোলন সংগ্রামের সময়ে নেতাকর্মীরা রাস্তাঘাট, নদী, বনজঙ্গলে পালিয়ে ছিলেন। তবে আন্দোলন সংগ্রামের সময়ে ঠিকই রাজপথে ছিলেন।

সাখাওয়াত ও বাবুসহ অনেক নেতাকর্মীরা তাদের পরিবারের সদস্যদের উপর নির্যাতনের পরেও তারা রাজপথে সংগ্রাম করেছে সকল কিছু কে অপেক্ষা করে রাজপথে সাহসী ভূমিকা রেখেছেন তার জন্য আমি মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সকল কারা নির্যাতিত ও হামলা মামলা স্বীকার সকল নেতাকর্মীদের কে বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান দেশনায়ক তারেক রহমানের পক্ষ থেকে সংগ্ৰামী শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানাই।

নারায়ণগঞ্জ মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের আহ্বায়ক শাখাওয়াত ইসলাম রানার সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব মমিনুর রহমান বাবুর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে , বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ,নারায়ণগঞ্জ মহানগর বিএনপির আহবায়ক এ্যাড. সাখাওয়াত হোসেন খান, সদস্য সচিব এ্যাড. আবু আল ইউসুফ খান টিপু, জেলা বিএনপির সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক মাশুকুল ইসলাম রাজিব, মহানগর বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক ফতেহ মোহাম্মদ রেজা রিপন, স্বেচ্ছাসেবক দল কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সহ- সভাপতি ( ঢাকা বিভাগ ) এম. জি মাসুম রাসেল, সহ- সভাপতি এ্যাড,সালমা সুলতানা সুমা, সিনিয়র যুগ্ম সাধারন সম্পাদক সাইফুল ইসলাম ফিরোজ, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মোহাম্মদ উল্লাহ চৌধুরী ফয়সাল, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, প্রশিক্ষন বিষয়ক সম্পাদক এম আর গনি মোস্তফা, সহ তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক গোলাম রহমান রাজিব,  সদস্য সফিকুর রহমান দেওয়ান, সদস্য  শিপলু ভূঁইয়া।

এছাড়াও আরও উপস্থিত ছিলেন নারায়ণগঞ্জ মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক কামাল উদ্দিন মীর্জা জনি, যুগ্ম আহ্বায়ক সাহেব উল্লাহ রোমান, ভিপি নজরুল ইসলাম, হামিদুর রহমান সুমন,মোঃ দুলাল হোসেন, শাহিন আহম্মেদ, আক্তার হোসেন, রাজিব হোসেন, ডালিম প্রধান, মাহাদী হাসান মিঠু, রেজাউল করিম, শাকিল আহমেদ, আক্তার হোসেন, রাইয়ান হক, আহ্বায়ক কমিটির সদস্য আমান শিকদার (দপ্তরের দায়িত্বে) ,হাসানুজ্জামান লিমন (সহ-দপ্তরের দায়িত্বে), শরিফুর রহমান, জাকির হোসেন জুয়েল, সাইফুল ইসলাম, মুনতাছির রহমান স্বপন, রাজা মিয়া, সহ প্রমূখ।

এ বিভাগের আরো সংবাদ
©2020 All rights reserved Daily Narayanganj
Design by: SHAMIR IT
themesba-lates1749691102