রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:৫৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
নগরীতে নাসিম ওসমান ক্রীকেট টুনার্মেন্ট এর শুভ উদ্বোধন করেন – পারভীন ওসমান আমরা হয়তো চলে যাবো কিন্তু নবপ্রজন্ম কে সুযোগ দিতে হবে- এ্যাড,আবু হাসনাত বাদল রোটারী ক্লাব অব নারায়ণগঞ্জ সেন্ট্রাল’র উদ্যোগে বিনামূল্যে চক্ষু চিকিৎসা গোগনগরে ইজতেমায়ে জিকির নাতে রাসূল (সঃ) মাহফিল অনুষ্ঠিত ফতুল্লা ইউপি”র উপ নির্বাচনে অটোরিকশা প্রতিক পেয়েছেন চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী , -ফাইজুল ইসলাম পঞ্চায়েত প্রধান শহীদউল্লাহ্ ফকিরের মৃত্যুতে নুরুজ্জামান জিকু’র শোক নাসিম ওসমানের কবর জিয়ারত করে নির্বাচনী প্রচারণায় চেয়ারম্যান প্রার্থী আমজাদ বীর শহিদদের বিনম্র শ্রদ্ধা জানলো জাহাজী শ্রমিক ফেডারেশনের নেতৃবৃন্দ মহান শহিদদের বিনম্র শ্রদ্ধা জানলো জেলা আওয়ামী মৎস্যজিবি লীগের নেতৃবৃন্দ মহান শহিদ দিবসে জেলা ট্রাক,ট্যাংকলরী কাভার্ডভ্যান শ্রমিক ইউনিয়নের শ্রদ্ধা নিবেদন

বঙ্গবন্ধুর ৪৮তম শাহাদতবার্ষিকীতে পূর্ব চরগড়কূল উচ্চ বিদ্যালয়ে মিলাদ ও দোয়া

সংবাদ দাতার নাম
  • প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ১৫ আগস্ট, ২০২৩
  • ২৫০ 🪪

বঙ্গবন্ধুর ৪৮তম শাহাদতবার্ষিকীতে পূর্ব চরগড়কূল উচ্চ বিদ্যালয়ে মিলাদ ও দোয়া

জাতীয় শোক দিবস ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৭তম শাহাদতবার্ষিকী উপলক্ষে বক্তাবলীর পূর্ব চর গড়কূল উচ্চ বিদ্যালয়ে আলোচনা, মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৫ আগস্ট) সকালে স্কুল প্রাঙ্গণে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন প্রধান শিক্ষক মো. আমজাদ হোসেন । আলোচনা সভায় প্রধান আলোচক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন অত্র স্কুলের আজীবন দাতা ও সভাপতি মোহাম্মদ নাজির হোসেন, স্কুলের শিক্ষক বৃন্দ ও শিক্ষার্থীরা।

 

বক্তব্যের শুরুতে মোহাম্মদ নাজির হোসেন শোক দিবস উপলক্ষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতি তাঁর গভীর শ্রদ্ধা জ্ঞাপন করেন। তিনি বলেন, ‘জাতির পিতা না থাকলে আমরা কখনো স্বাধীনতা পেতাম না। তাঁর নেতৃত্বেই আমরা স্বাধীনতা অর্জন করেছি। বাংলাদেশ প্রতিষ্ঠায় তার অবদান এত যে বাংলাদেশের নাম বঙ্গবন্ধু রাখলেও তাঁর ঋণ কখনো শোধ হতো না। তারই সুযোগ্য কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ার লক্ষে কাজ করে যাচ্ছেন।

আলোচনা সভায় আরো বক্তব্য রাখেন স্কুলের প্রধান শিক্ষক মো. আমজাদ হোসেন, সহকারী প্রধান শিক্ষক নাসরিন আক্তার,
আমিরুল ইসলাম, মো.জাহাঙ্গীর হোসেন, মো.হোসাইন পাটুয়ারী, সানজিদা সুলতানা, অনুকূল রায়,প্রাণ গোপাল ভাওয়াল শিক্ষকবৃন্দ, ছাত্রলীগ নেতা সহ আরো অন্যান্য।

মিলাদ শেষে ১৯৭৫ সালের ১৫ অগাস্ট সেনাবাহিনীর একদল কর্মকর্তা ও সৈনিকের হাতে নৃশংসভাবে নিহত বঙ্গবন্ধু ও তার পরিবারের সদস্যদের আত্মার মাগফিরাত কামনা করে বিশেষ মোনাজাত করা হয়।
মোনাজাত পরিচালনা করেন মো.আমিরুল ইসলাম ও সঞ্চালনায় ছিলেন জাহাঙ্গীর হোসেন।

এ বিভাগের আরো সংবাদ
©2020 All rights reserved Daily Narayanganj
Design by: SHAMIR IT
themesba-lates1749691102